সেই শিশুর দায়িত্ব নিলো জেলা প্রশাসন

child

ট্রাকচাপায় মায়ের পেট ফেটে জন্ম নেওয়া শিশুটির চিকিৎসাসহ সব দায়িত্ব নিয়েছে জেলা প্রশাসন। গতকাল শনিবার রাতে ময়মনসিংহ মহানগরীর লাবিব প্রাইভেট হাসপাতালে শিশুটিকে দেখতে এসে এ কথা জানান জেলা প্রশাসক মোহাম্মদ এনামুল হক।তিনি বলেন, ‌শিশুটির চিকিৎসা খরচসহ তার লালন-পালনের ব্যয় জেলা প্রশাসন বহন করবে। তার দায়িত্ব এখন থেকে জেলা প্রশাসনের। এ বিষয়ে পরিবারের সঙ্গে কথা বলে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেওয়া হবে।এনামুল হক আরও বলেন, ইতোমধ্যে অনেক ধনবান ব্যক্তি শিশুটিকে সহযোগিতা করার জন্য এগিয়ে আসছেন। এভাবে অসহায় মানুষের পাশে সহযোগিতার তার হাত বাড়িয়ে দেওয়া প্রত্যেকেরই দায়িত্ব।শিশুটি বর্তমানে ময়মনসিংহ মহানগরীর লাবিব প্রাইভেট হাসপাতালে চিকিৎসাধীন আছে। তাকে চিকিৎসা সেবা দেওয়াসহ প্রাইভেট হাসপাতালে অন্য মায়েদের বুকের দুধ খাওয়ানো হচ্ছে।লাবিব হাসপাতালের চিকিৎসক শিশু বিশেষজ্ঞ মো. কামরুজ্জামান জানান, তাকে সুস্থ করে তুলতে প্রয়োজনীয় চিকিৎসার ব্যবস্থা করা হয়েছে। তার হাতে ও কাঁধে দুটি হাড় ভেঙে যাওয়ায় অর্থোপেডিক সার্জনের সহযোগিতা নেওয়া হয়েছে।হাসপাতালের পরিচালক মো. শাহজাহান জানান, শিশুটি বর্তমানে সম্পূর্ণ সুস্থ আছে। তাকে এক নজরে দেখার জন্য বিভিন্ন এলাকার মানুষ হাসপাতালে ভিড় করছে।গতকাল শনিবার দুপুরে ঢাকা-ময়মনসিংহ মহাসড়কের ত্রিশালে ট্রাকচাপায় শিশুটির বাবা জাহাঙ্গীর আলম (৩৫), মা রত্না বেগম (২৬) ও বোন আড়াই বছর বয়সী জান্নাত আরা মারা যায়। তাদের বাড়ি ত্রিশাল উপজেলার মঠবাড়ি ইউনিয়নের রায়মনি গ্রামে। এ সময় ট্রাকের চাপায় রত্নার গর্ভে থাকা সন্তান বের হয়ে আসে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *